1. kmohiuddin456@gmail.com : admin :
  2. dailybanglarrobi@gmail.com : Arif Mahamud : Arif Mahamud
  3. jahedulhaque24@gmail.com : Jahidul Hoque Masud : Jahidul Hoque Masud
মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২১, ০৬:২১ অপরাহ্ন
নোটিশ :
সংবাদকর্মী নিয়োগ চলছে, যোগাযোগ : ০১৭০৮ ৫১৫৫৩৫, প্রচারেই প্রসার # সকল প্রকার বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন - ০১৭১২ ৬১৮৭০০

মন ভালো রাখতে মেনে চলুন এই ডায়েট

রিপোর্টার :
  • হালনাগাদ : সোমবার, ১১ জানুয়ারী, ২০২১
  • ২৩ Time View

শরীরের পাশাপাশি মন ভালো রাখা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কেননা মনের ভালো মন্দের উপর শরীরের ভালো থাকাও অনেকখানি নির্ভর করে। তাই মন ভালো রাখতেই হবে। এছাড়াও ঘন ঘন মন খারাপ থাকা মারাত্মক ডিপ্রেশনের লক্ষণ হতে পারে।

এজন্য খাবার অনেকটা সাহায্য করতে পারে। দেখবেন খাওয়ার পর মন অনেকখানি ভালো হয়ে যায়। যদিও মন খারাপ থাকলে খেতে ইচ্ছা করে না। এমনটা হলে খাবারের তালিকায় রাখতে পারেন এসব খাবার। যা আপনার মন সুস্থ এবং ভালো রাখতে সহায়তা করবে। শুধু মন সুস্থ রাখা নয়, অ্যালঝাইমার ডিজিজ ঠেকাতেও ‘মাইন্ড ডায়েট’ অনবদ্য।

বিভিন্ন সমীক্ষায় জানা গেছে, যারা নিয়মিত মাইন্ড ডায়েট খান, তাদের মধ্যে অ্যালঝাইমার ডিজিজের আশঙ্কা প্রায় ৫৩ শতাংশ কমে। আর যারা মাঝেমধ্যে খান, তাদের কমে প্রায় ৩৫ শতাংশের মতো। অর্থাৎ যে অসুখকে নিয়ে চিন্তার শেষ নেই, তাকে কিছুটা হলেও ঠেকানোর হাতিয়ার রয়েছে আমাদের হাতেই। তার উপর মন ভাল থাকা, স্ট্রেস–টেনশন–ডিপ্রেশন কমার মতো বিষয় তো রয়েছেই। এই খাবারগুলো আপনার ওজন কমাতেও সহায়তা করবে।

> দিনে কম করে তিন সার্ভিং হোল গ্রেইন খান। এক সার্ভিং হল একটা মাঝারি রুটি/এক পিস পাউরুটি/আধকাপ ভাত,ওটস কিংবা পাস্তা। ভাত, রুটি আগে যে পরিমাণে খেতেন তার চেয়ে কম খান। অল্প অল্প করে কমাবেন। সেই সঙ্গে সাদা চাল বা ময়দার বদলে ব্রাউন রাইস বা আটার রুটি খান, সাদা পাউরুটির বদলে খান ব্রাউন ব্রেড। তাও আগের চেয়ে অর্ধেক পরিমাণে।

> সালাদ খেতে পারেন। সঙ্গে লেবুর রস বা অল্প অলিভ অয়েল মিশিয়ে।

> সবজি খান রোজ। সম্ভব হলে অলিভ অয়েলে সতে করে। একেক দিন একেকটা।।

> চা কফি পান করতে পারেন। তবে গ্রিনটি বা ভেষজ পানীয় হলে বেশি ভালো। তবে যাই খান না কেন, চিনি ছাড়া খেতে হবে।

> সপ্তাহে ৩ থেকে ৪ দিন বিনস খান।

> ডিম, ৭৫–১০০ গ্রাম চিকেন ও বেরি কম করে সপ্তাহে ২ বার।

> সপ্তাহে অন্তত ১ দিন মাছ। ৭৫–১০০ গ্রাম। তৈলাক্ত ও সামুদ্রিক হলে ভালো।

> অস্বাস্থ্যকর খাবার সপ্তাহে ১ দিনের বেশি নয়।

> মাখন দিনে ১ চামচের কম।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

এই শাখায় অন্যান্য খবর
%d bloggers like this: